ইউটিউব চ্যানেল সার্চ করলে খুঁজে পাওয়া যায়না কেন - চ্যানেল এসইও সমস্যার সমাধাণ।

YouTube এসইও কি এবং কিভাবে করবেন। ইউটিউব চ্যানেল Search করলে খুঁজে পাওয়া যায়না কেন? চ্যানেল Keyword সেটিং, চ্যানেল ক্যাটাগরি নির্বাচন করার নিয়ম।

নতুন ইউটিউব চ্যানেল খুলেছেন ; বন্ধু বান্ধবদেরকে বললেন চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করতে অথচ ইউটিউবে সার্চ করলে আপনার চ্যানেল খুঁজে পাওয়া যায়না। আজকের পোস্টের মাধ্যমে শিখে নিন ইউটিউব চ্যানেল সার্চে আনার অসাধারণ টিপস। আপনার চ্যানেল এবার ১০০% সার্চে আসবে। সার্চে আপনার চ্যানেল খুঁজে না পাওয়া সমস্যার সমাধান হবে ইনশাআল্লাহ। 

ইউটিউব চ্যানেল সার্চে আনুন

বর্তমান ইউটিউবের জনপ্রিয়তা প্রচুর বেড়ে গেছে। ইউটিউব যেন, নিত্য দিনের সাথী। ইউটিউবে আমরা ভিডিও দেখছি বিনোদন পাচ্ছি,জানা অজানা গল্প শুনছি এছাড়াও নাটক সিনেমা গান ইত্যাদি উপভোগ করছি।আবার ইউটিউবের মাধ্যমে ছোট খাটো ভিডিও বানিয়ে ইনকাম করারও ব্যাপক সুযোগ। বর্তমান ভিডিও প্লাটফর্ম হিসাবে ইউটিউব-ই সেরা। এই ইউটিউবের মাধ্যমে অনেকেই হয়েছেন লাখ থেকে কোটি টাকার মালিক। এরিই ধারাবাহিকতায়, ইউটিউবে প্রতিদিন অসংখ্য ভিডিও ক্রিয়েটর যুক্ত হচ্ছেন, তাদের একটাই সমস্যার সম্মুখিন হতে হচ্ছে যেটা নিম্মে দেওয়া হল।

  • YouTube এ চ্যানেল Search করলে খুঁজে পাওয়া যায়না কেন? 
  • আমার চ্যানেল সার্চে আসেনা কেন? 
  • ইউটিউব চ্যানেল খুঁজে পাচ্ছিনা এর কারণ কি?

ইউটিউব চ্যানেল খুঁজে পাওয়া যায় না এই প্রশ্নের উত্তরে আজকের আর্টিকেল। আশাকরি আজকের আর্টিকেলের মাধ্যমে আপনি ইউটিউবের প্রথম পেইজে আপনার চ্যানেল Show করাতে সক্ষম হবেন তাই সম্পুর্ণ লেখাটি মনোযগ সহকারে পড়ার অনুরোধ রইলো।

প্রতিদিন ইউটিউবে অসংখ্য নামে অসংখ্য ইউটিউব চ্যানেল তৈরি হচ্ছে, আপনি যে নাম লিখেই সার্চ করুননা কেন; কিছু না কিছু প্রদর্শন হবেই। তাই ইউটিউবে নিজেদের চ্যানেলের নাম অথবা ভিডিওর নাম যেটায় হোক না কেন প্রত্যেকেই চাইবে Search রেজাল্টে প্রথম পেইজে আনতে। কেননা আপনি যে ভিডিও-ই তৈরি করুননা কেন ভিউস অথবা Subscribers কাউন্ট করতে হলে চ্যানেল SEO করার ভূমিকা অন্যতম।

ইউটিউব চ্যানেল সার্চে (প্রথম পেইজে) আনতে হলে আপনাকে অবশ্যই কিছু Tricks অনুসরণ করতে হবে। আপনি যদি ইউটিউবে দ্রুত সফলতা অর্জন করতে চান তাহলে Search Engine Optimization (SEO) কি জানতে হবে। আপনি যেদিন থেকে ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করে ভিডিও আপলোড দেওয়া শুরু করে দিয়েছেন সেদিন থেকেই এসইও করাটা জরুরি। আপনি যদি ভিডিও এসইও করতে ব্যার্থ হন তাহলে ভিজিটর হারাবেন আর ভিজিটর হারানো মানে ভিউস হারানো। এক কথায় ইউটিউবে জনপ্রিয়তা অর্জন করতে হলে অবশ্যই ধির মস্তিষ্কে কাজ করতে হবে।

ইউটিউব চ্যানেল এসইও কি? ( What's YouTube Channel SEO?

  • YouTube Channel Keyword.
  • Channel Category. 
  • Channel Description.

চ্যানেল কি ওয়ার্ড অর্থাৎ ভিজিটরস আপনার চ্যানেলকে যে নাম অর্থাৎ যে শব্দ লিখে খুঁজে পাবে। আমাকে কয়েকজন ভাই বন্ধু ইনবক্স করে বলেছেন ",ভাই আমার চ্যানেল ইউটিউবে সার্চ করলে খুঁজে পায়না, কি করবো একটু বলবেন তো। ইউটিউবে চ্যানেল খুঁজে না পাওয়ার কারণ হিসাবে যেটা আমি সব থেকে বেশি খেয়াল করেছি সেটা হল একিই নামে অসংখ্য চ্যানেল থাকা। অনেকেই বিভিন্ন প্রফেশনাল ইউটিউব চ্যানেলের নাম Copy করে চ্যানেল তৈরি করে থাকে। যার ফলে ইউটিউব অল্গারিদম কপি চ্যানেলকে Down করে দেয়। এই জন্য ইউটিউবে চ্যানেল তৈরি করার আগে বেশ কিছুদিন ধরে বিভিন্ন সার্চ ইঞ্জিনে সার্চ করা উচিৎ। প্রথমত আপনি যে নামেই চ্যানেল তৈরি করার কথা ভাবছেন উক্ত নামে ইউটিউবে গুগলে ইয়াহুতে সার্চ করে দেখুন সেইম নামে কি কি রেজাল্ট পাচ্ছেন। যদি সেইম নামে অন্য কিছু থেকে থাকে তাহলে ফিরে আসুন। ওই নামে চ্যানেল এসইও করতে ব্যার্থ হবেন। 

নিজের নামে চ্যানেল করতে চাইলে সেইম ভাবে বিভিন্ন সার্চ ইঞ্জিনে Search করুন। যদি আপনার নামে পপুলার কোন চ্যানেল আগে থেকেই থেকে থাকে তাহলে ফিরে আসুন। আর যদি নিজের নামেই করার প্রবল ইচ্ছা থাকে তাহলে অন্য মেথড কাজে লাগান যেমন ধরুন,আপনি যে ধরনের ভিডিও বানাবেন তেমন টাইপের শর্ট নেইম আপনার নামের আগে পরে যুক্ত করুন। Example - Sowrov Vlog - Entertain Sowrov - Sowrov Tech - Technical Sowrov - Sowrov World - Sowrov Media - Funny Boy Sowrov - Sowrov Official ETC.

একটা ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে চাইলে মূল থেকে ভুল কাজ করা যাবে না। আগে নামের ক্ষেত্রে গুরুত্ব দিন এরপর Best রেজাল্ট হিসাবে নাম সিলেক্ট করুন। এরপর ইউটিউবের Creator Studio তে চলে যান Channel Keyword সেটাপ করার জন্য।

ইউটিউব চ্যানেল কি ওয়ার্ড সেটিং

ক্রিয়েটর স্টুডিওতে প্রবেশ করে এক্কেবারে বাম পাশের নিচে থাকা Setting বাটনে ক্লিক করলে এরকম একটি ইন্টারফেস ওপেন হবে Setting - General - Channel.  বক্সে Keyword লিখে Enter Press করুন অথবা মোবাইলের কিবোর্ড এ GO বাটন প্রেস করুন।  Example: Shofi Official ইন্টার/GO বাটন।

এভাবে মোট 500 অক্ষরের মধ্যে কয়েকটি কি ওয়ার্ড বসিয়ে দিন, এতে করে আপনার দেওয়া Keyword অনুযায়ী যখন কেও সার্চ করবে তখন আপনার চ্যানেল উপরে চলে আসবে। এই সেটিং এর মাধ্যমে সার্চ হওয়ার সময় আপনার চ্যানেল সার্চ রেজাল্টে প্রদর্শন হবে। আশাকরি চ্যানেল Keyword কি এবং সেটাপ করতে সক্ষম হয়েছেন।

আরোও পড়ুনঃ

চ্যানেল কি ওয়ার্ড সেটিং এর পর এবার আমরা চলে যাবো Channel Category নির্বাচনে। একটি ইউটিউব চ্যানেল বানানোর আগে নিশ্চয় আপনি এটাও ভেবে নিয়েছেন এখানে আপনি কি ধরনের ভিডিও আপলোড করতে চান। ইউটিউবের মধ্যে অসংখ্য ভিডিও ক্যাটাগরি আছে এখান থেকে আপনাকে যে কোন একটি ক্যাটাগরি বেছে নিতে হবে। নির্বাচন কৃত ক্যাটাগরি অনুযায়ী ভিডিও আপলোড করতে হবে। আপনি যদি টেকনোলজি নিয়ে ভিডিও বানাতে ভালোবাসেন অবশ্যই তাই-ই সিলেক্ট করুন। মিউজিকের জন্য মিউজিক,বিনোদনের জন্য Entertainment. এভাবে যে কোন একটি সিলেক্ট করুন। একটি ইউটিউব চ্যানেলে পাঁচ মিশালি ভিডিও অর্থাৎ ভিন্ন ক্যাটগরি/ভিন্ন টপিকের ভিডিও আপলোড করবেন না, এটা থেকে বিরত থাকুন। যদি Vlog ভিডিও বানাতে ভালোবাসেন তাহলে ভ্লগ-ই বানিয়ে যান ;মিউজিকে আশার দরকার নেই। আশাকরি বুঝতে পেরেছেন। 

চ্যানেল ক্যাটগরি কিভাবে সিলেক্ট করবেন? এক্কেবারে সহজ। আপনি সেইম ভাবে Creator Studio তে চলে যান, এরপর সেটিং এ ক্লিক করুন তারপর আপলোড ডিফল্ট এ চলে যান। নিচের ছবিটি খেয়াল করুন। 

ইউটিউবের ভিডিও ক্যাটাগরি কিভাবে সেটিং করবো

এখানে অনেক ধরনের ভিডিও ক্যাটগরি অর্থাৎ Topics পেয়ে যাবেন আপনি আপনারটা নির্বাচন করে নিচে Save বাটনে ক্লিক করে সেইভ করে দিন। আশাকরি চ্যানেল ক্যাটাগরি নির্বাচনে সফল হয়েছেন। আমাদের শেষ আরেকটি কাজ বাকি আছে যেটা হল Channel Description অর্থাৎ চ্যানেলের বিষয় বস্তু। ইউটিউবের About সেকশনে গিয়ে সুন্দর ভাবে উপস্থাপণ করবেন চ্যানেলটি কিসের উপর এবং চ্যানেলে আপনি কি ধরনের ভিডিও আপলোড করেন বা করে থাকেন। ইউটিউব চ্যানেল SEO এর ক্ষেত্রে চ্যানেল ডেস্ক্রিপশনের গুরুত্ব অন্যতম। চ্যানেল ডেসক্রিপশনের কারণে Google ও অন্যান্য সার্চ ইঞ্জিন থেকে আপনার চ্যানেলে ফ্রী তে অসংখ্য ভিজিটর আসবে, এতে করে খুব অল্প সময়ের মধ্যেই আপনার চ্যানেলের জনপ্রিয়তা বেড়ে যাবে। আপনার চ্যানেল ইউটিউব নিজেই অন্যান্য ভিউয়ারসদের সামনে Recommend করবে। 

যাইহোক এতো প্যাচাল দিয়ে লাভ নাই,আশাকরি আজকের পোস্টের মাধ্যমে আপনি চ্যানেল এসইও সম্পর্কিত চ্যানেল কি ওয়ার্ড, চ্যানেল ক্যাটাগরি,চ্যানেল ডেসক্রিপশন সেটিং করতে সক্ষম হয়েছেন। এই সেটিং গুলোর ফলে আপনার চ্যানেলটি সার্চ রেজাল্টে প্রদর্শন হবে। আশাকরি সেটিং করার ৫-৭ ঘন্টার মধ্যেই আপনার চ্যানেলটি সার্চে খুঁজে না পাওয়ার সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে। আজকের মত বিদায় নিচ্ছি আমি শফি, দেখা হচ্ছে পরবর্তি আর্টিকেলে। আল্লাহ হাফেজ।

Rate This Article

Thanks for reading: ইউটিউব চ্যানেল সার্চ করলে খুঁজে পাওয়া যায়না কেন - চ্যানেল এসইও সমস্যার সমাধাণ। , Stay tune to get latest Blogging Tips.

Getting Info...

Post a Comment

Oops!
It seems there is something wrong with your internet connection. Please connect to the internet and start browsing again.
AdBlock Detected!
We have detected that you are using adblocking plugin in your browser.
The revenue we earn by the advertisements is used to manage this website, we request you to whitelist our website in your adblocking plugin.
Site is Blocked
Sorry! This site is not available in your country.